বাংলাদেশের বিপক্ষে জয় ছিনিয়ে ফাইনালে ভারত

photo-1497543197

খেলারহাট ডেস্ক:
বার্মিংহোমে আজ বিকেল সাড়ে ৩ টায় চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে ওঠার লক্ষ্যে ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামে টাইগার দল।এই ম্যাচে টস জিতে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠিয়েছিলেন ভারতের অধিনায়ক বিরাট কোহলি। আগে ব্যাট করতে নেমে তামিম ও মুশফিকে ভর করে নির্ধারিত ওভার শেষে ৭ উইকেটে টাইগারদের সংগ্রহ দাড়ায় ২৬৪ রান।

২৬৫ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৪০ ওভারের প্রথম বলেই ৯ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে জয় নিশ্চিত করে ভারত। বার্মিংহোমে ব্যাট হাতে সফল ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। ব্যাট হাতে রহিত শার্মা ও শেখর ধাওয়ানের উদ্বোধনী জুটিতেই ৮৭ রান সংগ্রহ করে ভারত। তবে বাংলাদেশী বোলার হিসাবে ভারত শিবিরে প্রথম আঘাতটি হানেন বাংলাদেশ দলপতি মাশরাফি । ৩৪ বলে ৪৬ রান করা শেখর ধাওয়ানকে সাঁজঘরে ফেরান তিনি। তবে রহিত শার্মা  ও  বিরাট কোহলির ব্যাটে ভর করে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় ভারত। রহিত শার্মা ১২৩ ও  বিরাট কোহলির ৯৬ বলে ৯৬ রানের অপরাজিত ইনিংসে ১০ ওভার বাকি থাকতেই ৯ উইকেটের বড় জয়ে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে পৌঁছে ্যায় কোহলির দল।


এরআগে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রথম ওভারে শূণ্য রানে সৌম্য সরকার সাজঘরে ফিরলে শুরুতেই চাপের মুখে পড়ে বাংলাদেশ। এরপর সাব্বির রহমান তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে প্রথম থেকেই আগ্রাসী ব্যাটিং শুরু করলে সপ্তম ওভারে মাত্র ১৯ রান করেই ফিরতে হয় তাকে।

তবে তৃতীয় উইকেটে তামিম-মুশফিকের ১২৩ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে ঘুরে দাড়ায় বাংলাদেশ। এরমধ্যে ৬২ বলে হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন তামিম। তামিমের পর টাইগার টেস্ট অধিনায়ক মুশফিক ও হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করলে আশার আলো দেখে বাংলাদেশী ব্যাটসম্যানরা। কিন্তু দলীয় ১৫৪ রানে জাদবের বলে ৭০ রান করা টাইগার ওপেনার তামিম ফিরলে অস্বস্তির মুখে পড়ে বাংলাদেশ।

তামিম ফিরলেও অপরপ্রান্ত আগলে রাখেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহীম। তাঁর সাথে সঙ্গদিতে গত ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরি পাওয়া সাকিব আল হাসান নামলেও ফিরতে হয় মাত্র ১৫ রান করেই।

এরপর টাইগারদের হয়ে হাল ধরেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও মোসাদ্দেক হোসেন। তবে তাঁরা ব্যাটে বলে সুবিধা করতে পারেনি। ব্যাক্তিগত ১৫ ও ২১ রানে মোসাদ্দেক হোসেন ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ সাঁজঘরে ফিরলে টাইগার দলপতি মাশরাফির ৩০ ও তাসকিন আহমেদের ১০ রানের অপরাজিত ইনিংসে ভর করে নির্ধারিত ওভার শেষে ৭ উইকেটে টাইগারদের সংগ্রহ দাড়ায় ২৬৪ রান।

ভারতের হয়ে সর্বচ্চো ২টি করে উইকেট শিকার করেন ভুবেনেশ্বর কুমার,কাদের জাদব ও ভুমরা। এছাড়া ১টি উইকেট নেন রবীন্দ্র জাদেজা।

উল্লেখ্য এরআগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে জয় নিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছিল পাকিস্তান।

খেলারহাট ডটকম/ একে

Copyright © 2017 khelarhaat.com all rights reserved. Developed by Website11